গতির নেশায় বেপরোয়া গাড়ির ধাক্কায় বনগায় মৃত্যু হলো ২জনের গুরুতর আহত ২, গ্রেপ্তার গাড়ির চালক ও তার সঙ্গিনী

একটি সুইফট্ গাড়ি করে বলতে গেলে জয় রাইডে বার হয়েছিলো জনৈক গোবিন্দ বিশ্বাস ও রিম্পি ঘোষ নামের দুই যুবক যুবতী। অভিযোগ, মদ্যপ অবস্থায় বেপরোয়া গতিতে গাড়িটি চালিয়ে তারা আসছিল চাকদা রোড ধরে বনগাঁর দিকে। প্রথমে গোপালনগরের দাঁড়িঘাটা ব্রিজের কাছে গাড়িটি ধাক্কা মারে একটি দাঁড়িয়ে থাকা মোটর ভ্যানে। দুজন গুরুতর আহত হলেও কোন ভ্রুক্ষেপ না করে গাড়িটি আরো গতি বাড়িয়ে ছুটতে থাকে বনগাঁর দিকে। বনগাঁ শহরে ঢুকে মোতিগঞ্জ এলাকায় সটান ধাক্কা মারে একটি দাঁড়িয়ে থাকা টোটো ও এক বাইক আরোহীকে। সেখানে গুরুতর জখম হন মধুসূদন পাল ও হাফিজুল রহমান মন্ডল নামের দুজন। হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানেই তাদের মৃত্যু হয়। মোতিগঞ্জে দুর্ঘটনার পরে সাধারণ মানুষ ধরে ফেলে ঘাতক গাড়িটিকে, ছড়িয়ে পড়ে তীব্র উত্তেজনা। থানার কাছে হবার ফলে পুলিশ দ্রুত পৌঁছে গাড়ির চালক ও তার সঙ্গিনীকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। স্থানীয় বাসিন্দা, ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী মনজুর হোসেনের অভিযোগ, পুলিশ আগে গাড়ির তলা থেকে দুর্ঘটনাগ্রস্তদের উদ্ধার না করে চালক ও তার সঙ্গিনীকে উদ্ধার করে নিরাপদে থানায় নিয়ে যায়। পুলিশ যখন ঘটা করে পালন করছে পথ নিরাপত্তা সপ্তাহ, মুখ্যমন্ত্রী আর্জি জানাচ্ছেন ‘সেফ্ ড্রাইভ, সেভ লাইফ’, তখন এই ঘটনা ফের প্রমাণ করলো, সাধারন যুবক-যুবতীরা প্রশাসনের সতর্কবার্তা কানে না তুলে মেতে আছে গতির নেশায়।

https://youtu.be/BY3sflx_024

Covid

Co