বরাদ্দ থেকে কম খাবার দেওয়ার অভিযোগে অভিভাবক বিক্ষোভে উত্তেজনা ছড়াল দত্তপুকুর বড়া ICDS সেন্টারে

লকডাউনের জন্য স্কুল বন্ধ দীর্ঘদিন ধরে, বন্ধ শিশুদের জন্য চালু করা ICDS স্কুল গুলিও। ফলে পাতি বাংলায় খিচুড়ি স্কুলগুলিতেও বন্ধ শিশুদের আসা-যাওয়া। সে কারণেই সরকারী সিদ্ধান্ত অনুসারে শিশুদের জন্য বরাদ্দ খাদ্য মাসে একবার করে তুলে দেওয়া হচ্ছে তাদের অভিভাবকদের হাতে। কিন্তু দত্তপুকুর ছোটজাগুলিয়া বড়া ICDS সেন্টারে এদিন স্থানীয় গ্রামবাসীরা সরকারী বরাদ্দের তুলনায় কম চাল, ডাল ,ছোলা ইত্যাদিতে বিক্ষোভে ফেটে পড়েন। ওই ICDS সেন্টারের ভারপ্রাপ্ত কর্মী, যিনি আবার স্থানীয় পঞ্চায়েত সদস্যাও, সেই পিয়ালি দাসকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করলে ছড়ায় উত্তেজনা। স্থানীয় বাসিন্দা সাবির আলী মোল্লার অভিযোগ, বহুদিন ধরেই বাচ্চাদের কম পরিমাণে খাবার দেওয়ার অভিযোগ উঠছে, তারা বিষয়টি সেন্টারেই শুধু নয় জানিয়েছেন পঞ্চায়েতেও, তাতেও কোনো সদুত্তর না পেয়ে আজ তারা বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন। ICDS সেন্টারের ভারপ্রাপ্ত কর্মী পিয়ালি দাস জানান, সরকারী ঠিকাদার যে মাল পাঠাচ্ছেন, তাতে প্রতি বস্তাতেই চাল, ডাল, ছোলা কম থাকছে।তাই তারা বিষয়টি সর্বস্তরের জানিয়ে, সেই কোন জিনিসই সমান ভাগে ভাগ করে দিচ্ছেন বাচ্চাদের।

https://youtu.be/5b1ZFj78RVM

Covid

Co