করোনাকে হারাতে ‘সামাজিক দূরত্ব’ নয়, মানতে হবে ‘শারীরিক দূরত্ব’।

ভারতে করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকে ‘সামাজিক দূরত্ব’ শব্দটি মানুষের কাছে অতি পরিচিত একটি শব্দ। ছোঁয়াচে করোনার ভাইরাস যাতে একজন থেকে আরেকজনের কাছে না ছড়িয়ে পড়ে, তার জন্য মানতে বলা হচ্ছে ‘সোশ্যাল ডিসটেন্স’ বা ‘সামাজিক দূরত্ব’। কিন্তু সংসদের বাদল অধিবেশনে ‘সামাজিক দূরত্ব’ শব্দটি নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তৃণমূল সাংসদ শান্তনু সেন। শান্তনুবাবুর যুক্তি অনুযায়ী, বর্তমান পরিস্থিতিতে করোনা রোগ সম্পর্কে মানুষের ভুল ধারণা রয়েছে। করণা আক্রান্তের প্রতি নির্মম ব্যবহারের উদাহরণ পূর্বে দেখা গিয়েছে বহুবার। আর এই পরিস্থিতিতে সামাজিক দূরত্ব কথাটি ব্যবহার হলে সমাজে করণা আক্রান্ত এবং সুস্থ মানুষের মধ্যে মানসিকতার দূরত্ব সৃষ্টি হচ্ছে।
শান্তনু সেনের এই যুক্তি মেনে আগামী দিনে করোনা সংক্রান্ত নির্দেশিকাতে ‘সামাজিক দূরত্ব’ নয় লিখতে হবে ‘শারীরিক দূরত্ব’ , জানাল কেন্দ্র। অর্থাৎ আগামী দিনে কেন্দ্র তরফ সে যে সমস্ত নির্দেশিকা প্রকাশ করা তাতে ‘সামাজিক দূরত্ব’ শব্দটি থাকবে না, তার পরিবর্তে ‘শারীরিক দূরত্ব’ শব্দটি ব্যবহার করা হবে।

Covid

Co