হাড়োয়ার গণধর্ষণ ঘটনায় নাটকীয় মোড়, সোশ্যাল মিডিয়ায় পুলিশ জানিয়ে দিল “কোনো ধর্ষণের ঘটনা ঘটেনি”

বছর২৮ এর এক গৃহবধূ গতকাল সকালে হঠাৎ করেই নিখোঁজ হয়ে যায় হাড়োয়া গোপালপুর মুন্সিঘেরি নতুন পাড়া থেকে। বেলার দিকে বৃষ্টি কমলে স্থানীয় মেছো ভেরির কর্মীরা দেখতে পায় ভেরি আড়ালে পড়ে রয়েছে ওই গৃহবধূ, তার হাত পা পিছমোড়া করে বাঁধা। নির্যাতিত গৃহবধূকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসার পর তিনি নিজেই অভিযোগ করেছিলেন স্থানীয় চার যুবক তাকে জোর করে তুলে নিয়ে গিয়ে মেছোভেড়ির আলে গণধর্ষণ করেছে। আর সেই ঘটনার তদন্তে নেমে, অভূতপূর্ব তৎপরতা দেখালো হাড়োয়া থানা সহ রাজ্য পুলিশ। ঘটনার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই কোন সাংবাদিক সম্মেলন করে নয়, একেবারে সোশ্যাল মিডিয়ায়, রাজ্য পুলিশের পেজে জানিয়ে দেওয়া হল “হাড়োয়ার গোপালপুর মুন্সিঘেড়ি নতুনপাড়া এলাকায় কোন গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেনি। ভদ্রমহিলার মেডিকেল পরীক্ষা করানো হয়েছে, তাতে পিঠে আঁচরের দাগ ছাড়া অন্য কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। মেডিকেল রিপোর্ট অনুযায়ী কোন যৌন নির্যাতনের চিহ্ন নেই। এবং ওই গৃহবধূ মৌখিক বিবৃতিতেও কোন যৌন নিপীড়নের কথা উল্লেখ করেননি”

https://youtu.be/cOSQa16E214

Covid

Co